বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:২২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
উৎপাদনশীল ও সম্ভাবনাময় কর্মের সুযোগ গ্রহণে নারীর সামর্থ্য উন্নয়ন অবহিতকরণ সভা বাটামারা ইউনিয়ন মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে এসএসসি পরীক্ষা দৃষ্টি নন্দন পরিবেশে হচ্ছে লক্ষীপুর বহুমূখী মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হচ্ছে এস এস সি পরীক্ষা চরকালেখান নেছারিয়া কামিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে দৃষ্টি নন্দন পরিবেশে চলছে দাখিল পরীক্ষা চরকালেখান আইয়াল মাধ্যমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দৃষ্টি নন্দন পরিবেশে চলছে এস এস সি পরীক্ষা পিরোজপুরে আলোচিত প্রতারক নাজমুল গ্রেফতার কুষ্টিয়ার একজন নারী নেত্রী আফরোজা আক্তার ডিউ ইঁদুর মারার বৈদ্যুতিক ফাঁদে প্রাণ গেল দুই ভাইয়ের রোজার আগে ভারত থেকে আসতে পারে পেঁয়াজ ও চিনি মেডিকেল পরীক্ষায় প্রশ্নফাঁসের সুযোগ ছিল না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

দশম শ্রেণীর পরীক্ষা দিতে চান তামান্না!

বিনোদন ডেস্ক
এমন কথাই শোনা গেল ভারতের দক্ষিণী অভিনেত্রী তামান্না ভাটিয়ার কণ্ঠে। শুধু তাই নয় ‘পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন, পরীক্ষা দিয়ে দশম শ্রেণীর পড়াও শেষ করতে চান’ এই অভিনেত্রী। হঠাৎ তামান্নার এমন কথায় অবাক তার ভক্তরা!
একটি ভিডিওতে তামান্নাকে এমন কথা বলতে শোনা গেছে। তবে ভক্তদের এ নিয়ে চিন্তার কারণ নেই। ভিডিওটি বেশ পুরনো। ভারতীয় সংবাদমাধ্যমের দাবি, এটি ২০০৪-২০০৫ সালের ভিডিও। সেই সময়েই নবাগত হিসেবে অভিনয়ে নাম লিখিয়েছিলেন তামান্না।

বর্তমানে শুধু ভারতের দক্ষিণী তামিল, তেলুগুই নয় বলিউডেও সমান জনপ্রিয় তামান্না। এই অভিনেত্রী অভিনয়ে নাম লিখিয়েছিলেন মাত্র ১৩ বছর বয়সে ‘চান্দসা রোশন চেহরা’ সিনেমার মাধ্যমে। ২০০৫ সালে সিনেমাটি মুক্তি পায়। তারপর একের পর এক সিনেমায় অভিনয় করেছেন তামান্না।

সম্প্রতি ২০০৪-২০০৫ সালের দিকের তামান্নার একটি ভিডিও ভাইরাল হয়। যেখানে তামান্নাকে বলতে শোনা যায়, ‘আমি এখন স্কুলে পড়ি। আমি দশম শ্রেণীতে পড়ি। আমি ২০০৫ সালে সই করি তখন আমার বয়স ছিল মাত্র সাড়ে ১৩ বছর। আমি ২০০৫ সালে দশম শ্রেণীর পরীক্ষা দেব। এখন পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি। এখন আমি এখন দশম শ্রেণির পড়া শেষ করব। ’

যদিও তামান্নার এই ভিডিও দেখে তার বয়স যে সাড়ে ১৩ বছর, এ কথা বিশ্বাস করেননি অনেকেই। একজন লেখেন, ‘তামান্নার এই ভিডিও দেখে মনে হচ্ছে ওর বয়স ২০-২১, ওকে মোটেও কিশোরী মনে হচ্ছে না। ’ আরেকজন লেখেন, ‘আামার মনে হচ্ছে, এটা তামান্নার ২১ বছরের ভিডিও। ’

কেউ আবার তাকে চিনতে না পেরে প্রশ্ন করেছেন, ‘আমিই কি একমাত্র ব্যক্তি, যিনি ওকে চিনতে পারছি না!’ কারোর কথায়, ‘১৫-১৬ বছর বয়সে কারোর এত ম্যাচিওর গলার স্বর হয়! বিশ্বাসযোগ্য নয়। ’

Please Share This Post in Your Social Media

© All rights reserved © 2017 ithostseba.com
Design & Developed BY Hostitbd.Com
Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com